হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম আল্লাহর হুকুমে মৃত্ মানুষ কে জীবিত করার ঘটনা

বনি ইসরাইলের এক লোক ছিল যার বিবি খুব সুন্দরী রূপবতী ছিল সে তার বিবির প্রতি আসক্ত ছিল যখন তার বিবি মারা গেল তখন সে খুবই ব্যথিত হলো এবং দীর্ঘদিন যাবৎ সর্বদা তার স্ত্রীর কবরের কাছে বসে থাকতো আর দু চোখের অশ্রু বৈবর্ত ঘটনাক্রমে একদিন হযরত ঈসা আলাইহিস সালাম এই পথ দিয়ে যাচ্ছিলেন ইসরাইলি লোকটি পেরেশানি দেখে তিনি তাকে এর কারণ জিজ্ঞাসা করলেন ইসরাইলি নিজের সকল ঘটনা খুলে বললেন হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম জানতে চাইলেন তুমি কি চাও আমি তোমার বিবিকে জীবিত করে দিই।

 আল্লাহর হুকুমে মৃত্ মানুষ কে জীবিত করার ঘটনা

লোকটি বলল জোহা সিটি হলে তো খুবি ভাল হয় আমি তো মন থেকে এটি চাই আমি তাকে খুবই ভালবাসতাম আমাকে একা রেখে চলে যাওয়ার পর থেকে আজ দীর্ঘ কয়েকটি মাস নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছি কবরের ছাড়া আমার আর পৃথিবীতে কোন স্থানই ভাললাগেনা হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম এর স্বামীর স্ত্রীকে জীবিত করার জন্য হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম কবরের লাশ কে লক্ষ্য করে আওয়াজ দিলেন কোন বিসমিল্লাহ সাথে একজন হাফসি কৃষ্ণাঙ্গ গোলাম উঠে আসলো যার নাক চোখ মুখ সহ শরীরের অন্যান্য ছিদ্র থেকে ভয়ংকর আগুনের শিখা বের হচ্ছিল।

হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম আল্লাহর হুকুমে মৃত্ মানুষ কে জীবিত করার ঘটনা

হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম কে দেখেই বললো বললো লা-ইলাহা-ইল্লাল্লাহ ইশা রুহুল্লাহ আর সাথে সাথে তার গায়ের আগুন নিভে গেল ইসরাইলি এই অবস্থা দেখে বলল হুজুর আমার ভুল হয়ে গেছে আমার বিবির কবর তো অন্যটা আসলে দীর্ঘ দুই মাস ধরে কান্নাকাটি করতে করতেই কোন কবরের সামনে যে আমার অবস্থান রয়েছে আমি সেটি ভুলে গিয়েছি এটা শুনে হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম ঐ গোলাম কি হুকুম দিলেন তুমি তোমার কবরে আল্লাহর হুকুমে চলে যাও সাথে সাথে সে লাশ হয়ে লুটিয়ে পরল এখানে উল্লেখ্য যে প্রথম. লোকটি যখন মৃত্যুবরণ করেছিল।

সে কাফের হয়ে পড়েছিল কিন্তু দ্বিতীয়বার হযরত ঈসা রুহুল্লাহ কে দেওয়া আল্লাহর বিশেষ ক্ষমতায় সে জীবিত হয়ে পুনরায় আবার ঈমান নিয়ে মৃত্যুবরণ করল এখন ঈসা আলাই সাল্লাম এর উপর ঈমান গ্রহণ করায় সে ঈমানদার হয়ে কবরে চলে গেল এবং তাঁর কবরকে মাটি দিয়ে ভরাট করে দেওয়া হলো হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম অন্য কবরের দিকে দৃষ্টিপাত করলেন এবং হুকুম করলেন কুমিল্লা হে কবরের অধিবাসী আল্লাহর হুকুমে জীবিত হয়ে যাও।

হযরত মারিয়াম এর ঘটনা

এবার সঠিক কবরের সামনে হযরত ঈসা রুহুল্লাহ নির্দেশনা পাওয়া মাত্র সাথে সাথে কবরের ভেতর থেকে এক অনিন্দ্য সুন্দরী মহিলা মাথা থেকে ধোঁয়া ছাড়তে ছাড়তে উঠে আসলো মহিলাকে দেখেই স্টাইলে লোকটি বলে উঠল হে রুহুল্লাহ হে আল্লাহর নবী এটাই আমার বিবি অতঃপর হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম অনুমতিক্রমে লোকটি তার বিবি কে নিয়ে বাড়ির পথে. কিন্তু দীর্ঘদিন নির্ঘুম রাত কাটানোর কারণে তার প্রচন্ড ঘুম পেলো লোকটি তার বিবি কে বলল তোমার কবরের সামনে দীর্ঘ দুই মাস কান্নাকাটি ও নির্ঘুম সময় কাটাতে কাটাতে আমি প্রায় শেষ হয়ে গেছি।

তাই আমি কিছু সময় আরাম করে নিতে চাই তার স্ত্রীর সাথে সাথে সম্মতি দিল লোকটি রাস্তার পাশেই শ্রান্ত পরিশ্রান্ত হয়ে তার বিরুদ্ধে মাথা দিয়ে ঘুমিয়ে পড়ল গভীর ঘুমে আচ্ছন্ন হয়ে পড়ল এমন সময় এক রাজকুমার ঘোড়ায় চড়ে এই পথ দিয়ে যাচ্ছিল রাজকুমারী ও ছিল খুব সুদর্শন সুঠাম দেহের অধিকারী তার সাথে ছিল অনেক লস্কর স্বর্ণ গহনা থেকে শুরু করে দুনিয়াবি অনেক আসবাবপত্র তাকে দেখে সেই ইসরাইলি বিবি নিজেই আসক্ত হয়ে গেল এবং রাজকুমারের প্রেমে পাগল হয়ে গেল।

নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে সে ইসরাইলি ভক্ত স্বামীর মাকে নিজের অর্ধেকে নামিয়ে রেখে রাজকুমারের সামনে গিয়া. রাজকুমার ও তখন তাকে দেখল কেউ তাকে পছন্দ করে ফেলল এবং সে মহিলার সম্মতি পেয়ে তাকে ঘোড়ার পিঠে উঠিয়ে নিল এবং রাজমহলের দিকে রওনা হলো ইসরাইলি লোকটি দীর্ঘ দুই দিনের ঘুম ভাঙ্গার পর বিবিকে পাশে দেখতে না পেয়ে সে আবারো চিন্তিত হয়ে পড়ল অবশেষে ঘোড়ার পায়ের চিহ্ন অনুসরণ করে করে রাজমহলে পৌঁছে গেল সে সেখানে তার বিবি কে রাজকুমারের সাথে আনন্দ আয়েশ করতে দেখতে পেল।

বিবি মরিয়ম ও ঈসা নবীর জীবন কাহিনী

ইসরাইলি ক্রুদ্ধ হয়ে রাজকুমার কে বলল এটা আমার বিবি দয়া করে আপনি তাকে ছেড়ে দিন রাজকুমার কিছু বলার আগেই মহিলাটি বলে উঠলো আমি তোমার বিবি নই আমি রাজকুমারের বাদী সে যেন নিজের কানকে বিশ্বাস করতে পারছিল না যে স্ত্রীর জন্য শেখ দীর্ঘ দুই মাস কবরের পাশে কান্নাকাটি করে নিজের জীবনকে ধ্বংস করেছিল সেই স্ত্রী আজ আল্লাহপাকের দেয়া হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম এর বিশেষ ক্ষমতার বলে. উঠে তার সাথে বেইমানি করল ইতিমধ্যে রাজকুমার তাকে গর্জন দিয়ে বলে উঠলো।

হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম আল্লাহর হুকুমে মৃত্ মানুষ কে জীবিত করার ঘটনা

তোমার কত বড় স্পর্ধা তুমি আমার বাঁ দিকে আমার কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে যেতে চাচ্ছ ইসরাইলি খুব অনুনয় করে বলল খোদার কসম এটা আমার বিবি তার মৃত্যুর পর হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম আমার জন্য তাকে জীবিত করে দিয়েছেন আমি দীর্ঘ দুই মাস তার শোকে শোকাহত ছিলাম এমন সময় হযরত ঈসা আলাইহিস সাল্লাম সেখানে আগমন করলেন তাকে দেখেই ঈশ্রায়েলি বলল হে আল্লাহর রাসূল আল্লাহর বন্ধু এই মহিলাটি আমার বিবি নয় যাকে আপনি আমার জন্য জীবিত করে দিয়েছিলেন।

আল্লাহ পাকের হুকুম হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম বললেন আহা এই তো সেই মহিলা এই কথা শুনে মহিলাটি বলল হে রুহুল্লাহ লোকটি মিথ্যাবাদী আমি এই রাজকুমারীর বাদী হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম বললেন তুমি কি সেই মহিলা যাকে আমি আল্লাহর হুকুমে জীবিত করেছিলাম. ছেলেটি বলল হে রুহুল্লাহ খোদার কসম আমি সেই মহিলা নয় এভাবে সেই মহিলাটি কাকুতি-মিনতি করতে থাকলো অতঃপর হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম বললেন আমি আল্লাহর হুকুমে তোমাকে দিয়েছিলাম সেই জীবন তুমি ফেরত দাও।

ঈসা নবীর কাহিনী

একথা সে মহিলার কানে যাওয়ার সাথে সাথে মহিলাটির দাঁড়ানো অবস্থা থেকে হঠাৎ হয়ে মাটিতে ঢলে পড়লো সে ঈমানদার হয়ে উঠেছিল ঠিকই কিন্তু এখন হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম কে অমান্য করে কাফের হয়ে কবরে গেলেও হযরত ঈসা আলাই সাল্লাম বললেন যদি কেউ এমন ব্যক্তিকে দেখতে চাই যে কিনা কাফের অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে কিন্তু জীবিত হয়ে ঈমান গ্রহণ করে তাহলে সেই যেন সেই হামকে দেখে যে একবার কাফের অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছিল ঠিকই আবার জীবিত হওয়ার পর ঈমানদার অবস্থায় ইন্তেকাল করল।

আর যে ব্যক্তি এমন মানুষকে দেখতে চাই যে ঈমানের অবস্থায় মৃত্যুবরণ করল ঠিকই কিন্তু আল্লাহ পাক তাকে দুনিয়ার. আজ নিয়ামত দেওয়ায় সে আবার দুনিয়ায় অন্ধ হয়ে অন্ধ ভক্তিতে মরীচিকার পিছনে দৌড়াতে থাকলেও নিজের স্বামীর সাথে বেইমানি করল করল আল্লাহর পাঠানো তার রাসূলের সাথে আল্লাহ পাক আবার তাকে জীবিত করে অতঃপর সে কুফরি অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে তাহলে সে যেন এই মহিলা কি ডাকে এই ঘটনা থেকে এসেই ইসরাইলি লোকটি বলল আমি আর কখনো বিয়ে করব না কথাটি বলেই সে আল্লাহর রাস্তায় বের হয়ে গেল এবং আল্লাহর এবাদত করতে করতে মৃত্যুবরণ করল আল্লাহ তাকে রহম করুন এবং গল্প থেকে আমাদের প্রত্যেককেই শিক্ষা গ্রহণ করার তৌফিক দান করুন আমিন.।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *